বিশ্বে ২৪ ঘণ্টায় করোনা কেড়ে নিল আরও ১৩ হাজার প্রাণ


মহামারী করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ের তাণ্ডবে গোটাবিশ্ব এখন তটস্থ। টিকা কার্যক্রম চললেও থেমে নেই মৃত্যুর মিছিল। যে মিছিলে গত ২৪ ঘণ্টায় শামিল হয়েছেন আরও ১৩ হাজার ২৭৭ জন। যার মধ্যে সবচেয়ে বেশি ৩ হাজার ৮৮০ জনের প্রাণহানি ঘটেছে ভারতে। এ সময়ে বিশ্বে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে আরও ৬ লাখ ৬২ হাজার ২২০ জন। যার মধ্যে সর্বোচ্চ ২ লাখ ৭৬ হাজার ২৬১ জনই ভারতের।

করোনা আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যানবিষয়ক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, এ নিয়ে বিশ্বে এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত রোগীর মোট সংখ্যা ১৬ কোটি ৫৫ লাখ ৪৯ হাজার ৩২৩। যাদের মধ্যে মারা গেছে ৩৪ লাখ ৩১ হাজার ৪৯৫ জন। এ পর্যন্ত ভাইরাসটির সংক্রমণ থেকে ১৪ কোটি ৫৭ লাখ ৯৬ হাজার জন সুস্থ হলেও সক্রিয় রোগীর সংখ্যা এখন ১ কোটি ৬৩ লাখ ২১ হাজার ৮২৮ জন।

বিশ্বে করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় সবার ওপরে থাকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত হয়েছে ২৮ হাজার ৫৪১ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৬৩৬ জনের। যা নিয়ে দেশটিতে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা এখন ৩ কোটি ৩৮ লাখ ২ হাজার ৩২৪ জন। যার মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ১ হাজার ৯৪৯ জনের। আক্রান্ত হিসেবে চিকিৎসাধীন ৫৯ লাখ ১ হাজার ১৯৫ জন।

এর পরের স্থানেই অবস্থান করা এশিয়ার জনবহুল দেশ ভারতে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা বিশ্বের মধ্যে সর্বোচ্চ। যাতে এ পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ কোটি ৫৭ লাখ ৭১ হাজার ৪০৫ জনে। আর মৃত্যু হয়েছে ২ লাখ ৮৭ হাজার ১৫৬ জনের। চিকিৎসাধীন ৩১ লাখ ৩৫ হাজার ৫৬৬ জন।

তালিকার তৃতীয় স্থানে রয়েছে ব্রাজিল। ল্যাটিন আমেরিকার ফুটবলপ্রিয় দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছে ১ কোটি ৫৮ লাখ ১৫ হাজার ১৯১ জন। আর মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৪১ হাজার ৮৬৪ জনের। চিকিৎসাধীন ১০ লাখ ৪৩ হাজার ২০৯ জন।

তালিকায় এরপরের স্থানে থাকা ফ্রান্স, তুরস্ক, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য ও ইতালিতে সংক্রমণের সংখ্যা ৪০ থেকে ৬০ লাখের মধ্যে থাকলেও তুরস্ক বাদে ওপর দেশগুলোতে মৃত্যু লাখ ছাড়িয়েছে। ৩৩ নম্বরে থাকা বাংলাদেশেও মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১২ হাজার।


আরও পড়ুন

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.